করোনার কারনে সমগ্র নিউজিল্যান্ড লেভেল ২ এর আওতায়

 গত ১০২ দিন নিউজিল্যান্ডে কোনো কমিউনিটি লেভেল বা স্থানীয়ভাবে কেউ করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়নি। তবে আজ ১১ আগস্ট খারাপ সংবাদ জানালো নিউজিল্যান্ড প্রশাসন। বিশেষ সংবাদ সম্মেলনে নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আরডর্ন ও স্বাস্থ্য অধিকর্তা ডা. অ্যাশলে ব্লুমফিলড ঘোষণা করেন, আগামী শুক্রবার (১৪ আগস্ট) পর্যন্ত সারা নিউজিল্যান্ড এলার্ট লেভেল ২ এবং অকল্যান্ড লেভেল ৩ এর আওতায় থাকবে।


অকল্যান্ডে একই পরিবারের চার জন যারা বিদেশ থেকে আসেননি তারা করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হবার পর এমন ঘোষণা দেওয়া হলো।

করোনা থেকে বাঁচতে ৪ ধরণের এলার্ট লেভেলের ঘোষণা দিয়েছিল নিউজিল্যান্ড। যেখানে লেভেল ১ প্রস্তুতি, ৪ লকডাউন আর লেভেল ২ এবং ৩ হলো মধ্যবর্তী অবস্থা।

মার্চে যখন বিশ্বে থাবা বসায় করোনা সেই সময় থেকেই কড়া লকডাউন বিধি আরোপ করা হয়েছিল নিউজিল্যান্ডে। তাতে সফলতাও পেয়েছিলো দেশটি। আর গত ৮ জুন নিউজিল্যান্ডকে করোনামুক্ত ঘোষণা করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আরডর্ন। পরবর্তীতে নিউজিল্যান্ডের অধিবাসীদের জন্য বিমান পরিষেবা চালু করলে  আবার করোনা সংক্রমণ ধরা পড়তে শুরু করে। তাদের সঠিকভাবে কোয়ারেন্টিনে রেখে পরিস্থিতি সামলেছে দেশটি। কিন্তু এবার কমিউনিটি টান্সমিশন ধরা পড়ার পর করোনা সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হলো।

এদিকে নিউজিল্যান্ডের পড়শি দেশ অস্ট্রেলিয়াতে করোনাভাইরাসের ক্রমণ বাড়ছে। মেলবোর্নে চলছে লকডাউন। এমন পরিস্থিতিতে ১০২ দিন করোনা মুক্ত থাকার পর আগামীকাল দুপুর ১২ টা থেকে সারা নিউজিল্যান্ডে আবার কার্যকর হচ্ছে করোনা সতর্কতামূলক লেভেল ২ এবং অকল্যান্ডে লেভেল ৩ ব্যবস্থা।

Post a Comment

0 Comments