বার্সায় না এসে রিয়ালেও যেতে পারতেন এই উদীয়মান তারকা

 প্রতিভা দেখে আগেই রিয়াল মাদ্রিদের ব্রাজিলিয়ান এজেন্ট ওয়েগনার রিবেরো ক্লাবকে জানিয়েছিলেন পেদ্রির কথা। সে অনুযায়ী এগিয়েছিল ক্লাবটি। তবে চূড়ান্ত চুক্তির আগে তার ট্রায়াল নিতে চেয়ে ছিল ক্লাবটি। আর পেদ্রিও গিয়েছিলেন মাদ্রিদে। কিন্তু হয়েও হয়নি সে চুক্তি।


আগের দিনই নিজেদের নতুন সাইনিং পেদ্রিকে উপস্থাপন করে ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনা। যদিও চুক্তিটা হয়েছিল আরও অনেক আগেই। তবে এ ব্রাজিলিয়ান তারকা হতে পারতেন চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদের। ২০১৮ সালে রিয়ালের সঙ্গে চুক্তিটা প্রায় পাকা হয়ে গিয়েছিল তার।

দিনটি ছিল ২০১৮ সালের ৫ ফেব্রুয়ারি। ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর জন্মদিন। বাবার সঙ্গে ট্রায়াল দিতে সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে গিয়েছিলেন ১৫ বছর বয়সী পেদ্রি। কিন্তু রোনালদোর জন্মদিনে বিশেষ পার্টি থাকায় সেদিন বন্ধ ছিল রিয়ালের অনুশীলন। তাই ফিরে আসতে হয় তাকে। পরদিন আবার উপস্থিত হওয়ার কথা ছিল তার।

পেদ্রির বাবার ভাষায়, 'সব কিছুই নষ্ট হয় তুষারপাতের কারণে। ট্রায়ালের আগে এটা ঝামেলা করে। অন্যথায় রিয়ালের সঙ্গে চুক্তি প্রায় হয়ে গিয়েছিল। পরে তারা আর সেটা করতে চায়নি।'

কিন্তু দুর্ভাগ্যজনকভাবে এর পর দিন থেকেই শুরু হয় তুষারপাত। যে কারণে পরদিন আর যাওয়া হয়নি পেদ্রির। এরমধ্যে নতুন দেশে আবহাওয়ার দ্রুত পরিবর্তনে জ্বর, সর্দি, কাশি লাগিয়ে বসেন তিনি। তাই শারীরিক অবস্থারও বেশ অবনতি ঘটে। এ অবস্থায় যখন রিয়ালে গেলেন এ ব্রাজিলিয়ান, তখন তাকে দেখেই বাতিল করে দেয় ক্লাবটি। আরও উন্নত করে আসার কথা জানায় তারা।

লিওনেল মেসিকে সময়ের সেরা খেলোয়াড় মানলেও সাবেক বার্সা তারকা আন্দ্রেস ইনিয়েস্তার বড় ভক্ত পেদ্রি। হতে চান মতোই। বাবার কাছ থেকে নিয়মিত তার ভিডিও দেখে বড় হয়েছেন। তবে বর্তমানে বার্সার আরেক তরুণ খেলোয়াড় ফ্রাঙ্কি ডি ইয়ংয়ের খেলাও ভালো লাগে তার।

রিয়ালে যোগ দিতে না পেরে দেশে ফিরে স্থানীয় ক্লাব লাস পালমাসে যোগ দেন পেদ্রি। সেখান থেকেই বার্সেলোনার নজরে আসেন তিনি। দ্রুতই তার সঙ্গে চুক্তি করে ফেলে ব্লাগ্রানারা। যোগ দেওয়ার পর পেদ্রি বলেছিলেন, 'এটা আমার স্বপ্ন ছিল। হয়তো আমি বার্সেলোনার জন্যই তৈরি হয়েছি। তারা আমাকে সুযোগটা দিয়েছে।'

Post a Comment

0 Comments