ভোটে কারচুপি এবং পুলিশি নির্যাতনের প্রতিবাদে উত্তাল বেলারুশ

 বিবিসি জানায়, রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বেলারুশের নিরাপত্তা রক্ষায় প্রযোজনীয় সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি দেওয়ার পর ওই বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।


রোববার, নির্বাচনে ব্যাপক কারচুপি ও পরবর্তীতে বিক্ষোভে পুলিশি নির্যাতন নিয়ে উত্তপ্ত রাজধানী মিনস্কের কেন্দ্রস্থলে ‘মার্চ ফর ফ্রিডম’ বিক্ষোভ সমাবেশ হয়েছে।

গত ৯ আগস্ট বেলারুশের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বিপুল ভোটে জয়লাভ করেন লুকাশেঙ্কো। ওই নির্বাচনে ব্যাপক কারচুপি ও প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে জোর করে ক্ষমতা আঁকড়ে রাখার অভিযোগ ওঠে।

এর আগে, নির্বাচন নিয়ে বিক্ষোভকারীদের ভিন্ন দেশ নিয়ন্ত্রিত ‘ভেড়া’ হিসেবে আখ্যা দেন প্রেসিডেন্ট লুকাশেঙ্কো। সমর্থকদের প্রতি দেশ ও স্বাধীনতা রক্ষার আহ্বান জানান তিনি।

ফলাফল ঘোষণার পর বিরোধী দলের নেতা সভেতলানা তিখানভস্কায়া কারচুপির অভিযোগ করেন। তার দাবি, যেখানে ভোট গণনা করা হয়েছিল সেখানে তিনি নিজের পক্ষে ৬০ থেকে ৭০ পর্যন্ত সমর্থন পেয়েছিলেন।

দেশটির কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন জানায়, ১৯৯৪ সাল থেকে ক্ষমতায় থাকা আলেক্সান্ডার লুকাশেঙ্কো এ বারের নির্বাচনে ৮০ দশমিক ১ শতাংশ ভোট পেয়েছেন। অন্যদিকে, বিরোধী দলের প্রধান প্রার্থী সভেতলানা তিখানভস্কায়া পেয়েছেন ১০ দশমিক ১ শতাংশ ভোট।

বিবিসি জানায়, সরকারের বিরোধিতা করায় দেশটিতে প্রায় ৬ হাজার ৭০০ জনকে আটক করা হয়েছে। অনেকেই নিরাপত্তা বাহিনীর হাতে নির্যাচনের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

এদিকে, সম্প্রতি সরকারবিরোধী বিক্ষোভে পুলিশি নির্যাতনের ঘটনায় ফুঁসে উঠেছে বিক্ষোভকারীরা।

Post a Comment

0 Comments